বৃষ্টির আশংকা মাথায় নিয়েই দ্বিতীয় ওয়ানডে মাঠে নামছে শ্রীলঙ্কা ও ইংল্যান্ড

প্রথম ম্যাচ টি বৃষ্টি বিঘ্নিত হওয়ায় শ্রীলংকা এবং ইংল্যান্ড দু’দলই চাইবে পাঁচ ম্যাচ সিরিজের দ্বিতীয় ওয়ানডে ম্যাচে জয়লাভ করতে। ইংল্যান্ড শ্রীলংকার মধ্যকার দ্বিতীয় ও ডি আই ম্যাচ টি রামগিরি ডাম্বুলা আন্তর্জাতিক স্টেডিয়ামে শনিবার 13 অক্টোবর অনুষ্ঠিত হবে।

দু দলই এখন পর্যন্ত একে অপরের সাথে ৭১ টি ওডিআই ম্যাচে মুখোমুখি হয়েছে। এই ৭১ বার এর মধ্যে শ্রীলঙ্কা ৩৪ বার জয়লাভ করেছে এবং ইংল্যান্ড ৩৩ বার জয় লাভ করেছে এর মধ্যে একটি ম্যাচ টাই হয়েছে এবং দুটি ম্যাচ অসমাপ্ত ভাবে শেষ হয়।

তা সত্বেও দুটি দল তাদের দ্বিতীয় ওডিআই এর জন্য নিজেদের ঝালিয়ে নিচ্ছে। যদিও শনিবার ডাম্বুলা তে বৃষ্টি হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে যে কারণে দ্বিতীয় ওয়ানডেতেও বিঘ্ন ঘটতে পারে।

বৃষ্টির আশংকা মাথায় নিয়েই দ্বিতীয় ওয়ানডে মাঠে নামছে শ্রীলঙ্কা ও ইংল্যান্ড
Image Source: Times Now

বুধবারের প্রথম ওয়ানডে বৃষ্টির কারণে ১৫ ওভারের বেশি খেলা সম্ভব হয়নি যদি শনিবারের দ্বিতীয় ওয়ানডের দিন একই রকম বৃষ্টির কারণে খেলা বিঘ্নিত হয় তাহলে ১৪ তারিখ রিজার্ভ ডেতে খেলাটি পৌঁছাবার একটি সম্ভাবনা রয়েছে।

ইংল্যান্ডের খেলা দেখে একটা বিষয় পরিষ্কার হওয়া যাচ্ছে যে ইংল্যান্ড শ্রীলংকার সাথে এই ৫ সিরিজ ম্যাচের টুর্নামেন্টকে  বিশ্বকাপের জন্য প্রস্তুতি হিসেবে গ্রহণ করেছে এজন্য তাদের মূল একাদশে কিছু অপ্রত্যাশিত পরিবর্তন আমরা লক্ষ্য করতে পারি। এবং যার প্রতিচ্ছবি হিসেবে আমরা দেখতে পাই প্রথম ম্যাচে ইংল্যান্ডের হয়ে অলে স্টোন এবং লিয়াম ডসন অভিষেক করেন।এবং আশা করা যাচ্ছে যে পরবর্তী ম্যাচের জন্য এ দু’জন ইংল্যান্ড দলের হয়ে মাঠে নামবেন। যাতে করে তারা তাদের সামর্থ্য পুরোটুকু দিয়ে নিজেদেরকে প্রমাণ করতে পারে।

প্রথম ওয়ানডেতে ভেরি স্টোর এবং জেসন রয় ৪৯ রানের পার্টনারশিপ দিয়ে তাদের ওয়ানডেতে এক হাজারের মাইলফলক অর্জন করে। তাই আশা করা যাচ্ছে যে দ্বিতীয় ওয়ানডেতেও ইংল্যান্ডের হয়ে এরা ওপেন করতে পারে। প্রথম ম্যাচে এই ওপেনার জুটি ৫ বলের ব্যবধানে আউট হয়ে যায় তাই আশা করা যাচ্ছে যে দ্বিতীয় ম্যাচে তারা আরো শক্ত ভাবে ফিরে আসতে পারে।

রুটস এখন বেশ ভালো একটি ফর্মে আছে। এবং ভারতের বিপক্ষে সে ভালো পার্ফরম্যান্স দেখিয়েছে। ভারতের বিপক্ষে সিরিজে মর্গান ও বেশ ভাল খেলেছে এবং দুটি অর্ধশতক অর্জন করেছে। ইংল্যান্ড দল তাই এই দুজন অভিজ্ঞ খেলোয়াড়ের উপরে ভরসা করে রয়েছে এবং আশা করা যাচ্ছে যে তারা খেলার মধ্যম ভাগ এবং শেষের দিক পর্যন্ত খেলায় টিকে থাকবে এবং যদি সেটা করতে তারা সক্ষম হয় তাহলে ইংল্যান্ড ভালো একটি ফলাফল অর্জন করতে পারবে।

বৃষ্টিবিঘ্নিত প্রথম ওয়ানডেতে ইংল্যান্ড তার বলারদের কাজে লাগাতে পারেনি তাই আশা করা যাচ্ছে যে মঈন আলি এবং আদিল রশিদ দ্বিতীয় ওয়ানডেতে তাদের নৈপুণ্য প্রদর্শন করবে। আলী প্রস্তুতি ম্যাচে তিনটি উইকেট গ্রহণ করে এবং গত ১০ টি ওয়ানডেতে সেট ২৩ টি উইকেট অর্জন করে। বৃষ্টির কারণে পিচে কিছু পরিবর্তন আসতে পারে এবং সেটি মাথায় রেখেই ইংল্যান্ডের ফাস্ট বোলার ক্রিস ওয়েকস এবং মার্ক উড নিজেদেরকে তৈরি করছেন যাতে তারা শ্রীলংকা ব্যাটসম্যানদের উপরে চড়াও হতে পারে।

ইংল্যান্ড এখন একটি পরিবর্তনের মধ্যে দিয়ে যাচ্ছে তাই নিশ্চিত ভাবে বলা যাচ্ছে না যে ম্যাথিউ এর দল থেকে বাদ পড়া এবং দীনেশ চান্দিমালের অধিনায়ক হওয়াটি শ্রীলংকার জন্য ফলপ্রসূ হবে না ক্ষতিকারক হবে। তবে এটিও মাথায় রাখতে হবে যে ইংল্যান্ড এই নতুন পরিবেশের সাথে এখন পর্যন্ত নিজেদেরকে খাপ খাইয়ে নিতে পারেনি এবং এর জন্য তারা খুব বেশি একটি সময় পায়নি তাই শ্রীলংকার হাতে একটি বড় সুযোগ রয়েছে ইংল্যান্ডকে তকমা দেয়ার।

বৃষ্টির আশংকা মাথায় নিয়েই দ্বিতীয় ওয়ানডে মাঠে নামছে শ্রীলঙ্কা ও ইংল্যান্ড
Image Source: Cricbuzz.com

ম্যাথিউ কে ছাড়া শ্রীলংকা কে নতুন ভাবে তার ব্যাটিং লাইন আপের দিকে নজর রাখতে হচ্ছে, নতুন লাইনআপে উপল থারাঙ্গা এবং কুশল পেরেরা শ্রীলংকার হয়ে সূচনা করবে। থারাঙ্গা শ্রীলংকা হয়ে এখন পর্যন্ত ওয়ানডেতে এই দলের সর্বোচ্চ বেশি রান সংগ্রহ করেছে তা চার্টের দিকে তাকালে আমরা দেখতে পাই থারাঙ্গা এখন পর্যন্ত ৬৯৩৬ রান করেছে অন্যদিকেপেরেরা দক্ষিণ আফ্রিকার সাথে গত সিরিজে শ্রীলঙ্কার হয়ে সর্বোচ্চ  ১৭৯ রান  করে। এরা দুজন ছাড়াও নিরোসান ডিকওয়েবার এর উপর দায়িত্ব থাকবে দলকে একটি প্রতিযোগিতামূলক পর্যায়ে পৌঁছে নিয়ে যাওয়ার।

থিসারা পেরেরা শ্রীলংকার হয়ে এখন পর্যন্ত বেশ ভালো খেলেছে এবং সে গত ১০ ওয়ানডে সিরিজে ১৯ টি উইকেট নিয়েছে তাই আশা করা যাচ্ছে পেরেরা ইংল্যান্ড এর জন্য বেশ ক্ষতিকারক হবে তাদের নিজেদের দেশের এই সিরিজে। তবে প্রথম ওয়ানডেতে নুয়ান প্রদীপ এবং আকিলা ধনঞ্জয় শ্রীলংকার পক্ষ হয়ে বৃষ্টি বিঘ্নিত ওই ম্যাচে উইকেট দখল করতে সক্ষম হয়। দ্বিতীয় ওয়ানডেতে শ্রীলংকার জন্য তারা বেশ ভালো একটি শক্তি হিসেবে কাজ করবে।

লাসিথ মালিঙ্গার প্রথম ম্যাচের শুরুটা খুব একটা ভাল হয়নি গড়ে  তিনি ওভারে ৭ রানের বেশি দিয়েছেন। কিন্তু আশা করা যাচ্ছে দ্বিতীয় ওয়ানডেতে তিনি একটি ভালো খেলা উপহার দিবেন।

ইংল্যান্ড একাদশঃ এওইন মর্গান, জস বাটলার, জনি ব্যারিস্টো, জেসন রয়, বেন স্টক, লিয়াম ডাওসন অথবা স্যাম কুর‍্যান, ক্রিস অয়াকেস, মইন আলী, জো রুট এবং অলে স্টোন।

শ্রীলংকা একাদশঃ দিনেশ চান্দিমাল, নুয়ান ধানাঞ্জয়, ধানাঞ্জয় ডি সিল্ভা, নিরসন ডিকয়ালে, কুশাল পেরেরা, ধানুশ সানাকা, আকিলা ধানাঞ্জয়, লাশান সান্দাকান, লাসিথ মালিঙ্গা, উপাল থারাঙ্গা এবং থিসারা পারেরা।

বেটিং রেটঃ

শ্রীলংকাঃ ৩.০০

ইংল্যান্ডঃ ১.৩৯

, , , , , , , , , , , , , , , , , , , , , ,

5 thoughts on “বৃষ্টির আশংকা মাথায় নিয়েই দ্বিতীয় ওয়ানডে মাঠে নামছে শ্রীলঙ্কা ও ইংল্যান্ড

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।