আবারো সঙ্কুচিত হচ্ছে ক্রিকেট; ১০০ বলের ক্রিকেট ম্যাচের পরিকল্পনা করছে ইসিবি

ইংল্যান্ড ও ওয়েলস ক্রিকেট বোর্ড ক্রিকেটের আরেকটি সংক্ষিপ্ত সংস্করণে যাওয়ার পরিকল্পনা করছে। টি ২০ ফরম্যাটের প্রবর্তকেরা এখন ১০০ বলের ক্রিকেট ম্যাচ আয়োজনের করতে চাচ্ছে। প্রাথমিক পরিকল্পনাতে তাঁরা শহর ভিত্তিক আটটি দল নিয়ে পুরুষদের এবং মহিলাদের জন্যে আলাদা দুটি টুর্নামেন্ট করতে চাচ্ছে।

আবারো সঙ্কুচিত হচ্ছে ক্রিকেট
Source: Evening Standard

তাঁরা প্রথম ১৫ ওভারে ক্রিকেটের প্রচলিত নিয়ম অনুযায়ী ৬ বলের ওভার আর শেষে একটি ১০ বলের ওভার দিয়ে ম্যাচ ম্যাচ আয়োজন করতে চাচ্ছে। যেটি বর্তমান প্রচলিত টি২0 ম্যাচের তুলনায় ২0 বল কম হবে।

এই প্রস্তাবটি গত বৃহস্পতিবার ইসিবি কর্তৃক প্রথম শ্রেণীর কাউন্টির চেয়ারম্যান ও প্রধান নির্বাহী এবং এমসিসি বরাবর উপস্থাপিত হয়।

বৃহস্পতিবার ইসিবির পেস করা বিবৃতি অনুযাযয়ী জানা যায় প্রতিযোগিতার মৌসুমের মাঝখানে পাঁচ সপ্তাহের একটি নির্ধারিত সময়ে এটি অনুষ্ঠিত হবে।

ইসিবি প্রধান নির্বাহী অফিসার টম হ্যারিসন বলেন, “এটি একটি তরতাজা এবং উত্তেজনাপূর্ণ ধারণা যা অল্প বয়স্ক দর্শকদের আবেদিত করবে এবং খেলাটির প্রতি নতুন ভক্তদের আকৃষ্ট করবে।”

সাবেক ইংলিশ অধিনায়ক এবং ইংলিশ ক্রিকেটের বর্তমান পরিচালক অ্যান্ড্রু স্ট্রস বিবিসি রেডিও ৫ এর সাথে এক সাক্ষাৎকারে বলেন, “টি ২0 অসাধারণ সফলতা অর্জন করেছে এবং খুবই শক্তিশালী দর্শক শ্রেনী প্রতিষ্ঠা করেছে”।

পরে তিনি যোগ করেন, “আমরা ঐ দর্শক শ্রেনীর সাথে ভিন্ন ভিন্ন দর্শকও চাই, যারা হয়তো কিছুটা ভিন্ন ভাবে জিনিসটা চাইবে। এই কারনটিই এই আইডিয়ার পেছনে মূল চালিকা শক্তি হিসেবে কাজ করেছে।“

“টি২0 আজকাল লম্বাই হচ্ছে । অনেক জায়গায় ম্যচ শেষ হতে চার ঘণ্টা বেশি সময় লেগে যাচ্ছে।”

ইসিবি
Source: The Independent

“আমরা চাই বাচ্চারা যেন (খেলা দেখে) তাড়াতাড়ি ঘুমাতে যেতে পারে। আর খেলাগুলোও টেরিস্ট্রীয়াল টিভিতে (ক্যেবল হীন) । সাধারনত যারা খেলা দেখেন না, ঐ দর্শকেরাই আমাদের প্রধান লক্ষ্য।”

ইংলিশ পেসার স্টুয়ার্ট ব্রড এই নতুন ফর্ম্যাটের পক্ষে স্কাই স্পোর্টসকে বলেন, “আমি অত্যন্ত আশাবাদী। সারা বিশ্ব জুড়ে অন্যান্য সমস্ত টুর্নামেন্টের থেকে ভিন্ন হওয়ায় ব্যাপারটা আমার ভালই লেগেছে। ১৫টি ছয় বলের ওভার এবং শেষে ১০ বলের ওভারের চাপ, ভালই হবে আশা করি। ”

নতুন এই বিষয়টি নিয়ে কিছু বিরোধও বিদ্যমান রয়েছে। এদিকে টুইটারে সাবেক ইংলিশ ফাস্ট বোলার ক্রিস ট্রেমলেট পোস্ট করেছেন, “আমি জানি না টি২0তে সমস্যাটা কোথায় আর কেনইবা আমরা শঙ্কিত হচ্ছি!”

তিনি পরে আরো যোগ করেন ” আরো ছোট না করে খেলাটির দীর্ঘতম পরিসরকেই আরো মসলাদার করা উচিৎ।”

এখানেই শেষ নয়যে শেষ। কিছু ভক্ত অনুরাগী এবং খেলোয়াড়েরা তো আরো বঙ্গাত্যক ভাবে বলেছেন, “খেলোয়াড়দের ভাঁড়ের পোশাক পড়ে মাঠে নামা উচিৎ।”

সে যাই হোক, আমরা এই নতুন প্রস্তাবিত ফরম্যাট নিয়ে আর কোন বিচার বিশ্লেষণ করবো না। শুধু সময়ই দেবে এই উদ্ভাবনী ধারণা আসলে কতটা ফলপ্রসূ হবে।

*তথ্যসূত্র

www.bbc.com

www.timesofindia.indiatimes.com

, , , , ,