আইসিসি ক্রিকেট বিশ্বকাপ ২০১৯ঃ বাংলাদেশ বনাম আফগানিস্তান ম্যাচ প্রিভিউ

আইসিসি ক্রিকেট বিশ্বকাপ ২০১৯ এর এটাই সম্ভবত বাংলাদেশ টাইগারদের জন্যে সবচেয়ে বড় ‘পরীক্ষা’। আমরা কি জন্যে এই ম্যাচটাকে সবচেয়ে বড় পরীক্ষা বলছি আগে সেটার ব্যাখ্যা করি। আসলে মূল কারনটা হল প্রত্যাশ্যার চাপ। অন্য যে কোন ম্যাচের হারটা অনেক কিছু বিবেচনায় মেনে নেয়া যায়, কিন্তু ক্রিকেট বিশ্বকাপের এই পর্যায়ে এসে আফগানিস্তানের সাথে হারটা টাইগারদের কাছে কোন ক্রমেই গ্রহনযোগ্য নয়।

Source: News Nation

এবারের বিশ্বকাপ শুরুর আগে থেকেই হিসাব করা হয়েছিল যে বাংলাদেশ অন্তত আফগানিস্তান আর শ্রীলংকার বিপক্ষে ম্যাচ দুটি জিতবে। কিন্তু সেই প্রত্যাশার গল্পটা এখন অনেকটা ভিন্ন।দক্ষিন আফ্রিকা আর ওয়েস্ট ইন্ডিজের সাথে দাপুটে জয় পাওয়া বাংলাদেশের জন্যে শ্রীলংকার ম্যাচটা বৃষ্টিতে ভেসে যাওয়াতে এখন আফসস করা ছাড়া কিছুই করার নেই। তাই নিজেদের সেমিফাইনালের স্বপ্ন বাঁচিয়ে রাখতে আফগানদের বিপক্ষে জয়টা কোন মতেই হাতছাড়া হতে দেয়া যাবে না।

সে যাই হোক, বেখন পর্যন্ত এই বিশ্বকাপে টাইগারদের যে পারফর্মেন্স তাতে আফগানদের বিপক্ষে বাংলাদেরশের বাড়তি চাপ নেওয়ার কোন কারন নেই। আর বাংলাদেশের টিম ম্যানেজমেন্টও এই প্রত্যাশার অদৃশ্য বাড়তি চাপটাকে যতটা সম্ভব দূরে রাখতেই চাইবে। তবে আফগানদের সর্বশেষ ম্যাচের পারফর্মেন্স বিবেচনা করলে কিছুটা বাড়তি সতর্কতা অবশ্যই নিতে হবে বাংলাদেশকে।

আরেকটি গুরুত্বপুর্ণ বিষয় হল সাউদাম্পটনের এই মাঠে বাংলাদেশ তাদের ক্রিকেট ইতিহাসে এখন পর্যন্ত কোন ম্যাচ খেলেনি। এই মাঠের আকৃতিটা প্রকৃতপক্ষেই অনেক বড়। আর এমন বড় সীমানার মাঠে খেলার অভিজ্ঞতাটা বাংলাদেশের খুব একটা নেই। তাই এই বিষয়টা বাংলাদেশের ব্যাটিং আর ফিল্ডিং এ কিছুটা হলেও প্রভাব ফেলতে পারে।

অন্যদিকে টাইগারদের প্রতিপক্ষ আফগানিস্তান তাদের সর্বশেষ ম্যাচটা মাত্র দুদিন আগেই খেলেচে ভারতের বিপক্ষে। আর তাদের পারফর্মেন্সও ছিল দুর্দান্ত। তারা ভারতককে প্রায় হারিয়েই দিয়েছিল, কিন্তু অল্পের জন্যে এবারের বিশ্বকাপ ক্রিকেট এর সবচেয়ে বড় অঘটনের হাত থেকে বেঁচে যায় ভারত। আর এই দুঃসাহসিক পারফর্মেন্স নিঃসন্দেহে আফগানদের আত্নবিশ্বাসটা অন্য উচ্চতায় নিয়ে গেছে।

আর আগামিকালের ম্যাচটাও হবে ভারত-আফগানিস্তান ম্যাচের সেই একই উইকেটে। আর তাই উইকেট যে কিছুটা টার্নিং এবং মন্থর গতির হবে সেটাও আন্দাজ করা যাচ্ছে। আর এমনটা হলে আগগানদের বৈচিত্রময় স্পিন আক্রমণের জন্যে সেটা হবে একটা বিশাল পাওনা।

Source: CricTracker.com

কোন সন্দেহ নেই যে বাংলাদেশ দলের প্রায় প্রত্যেক ব্যাটসম্যানই তাদের ইতিহাসের সেরা ফর্মে রয়েছেন, তবে এই ম্যাচে রানের চাকাটা দ্রুত সচল রাখতে বাউন্ডারির চেয়ে স্ট্রাইক পরিবর্তনেই বেশি মনোযোগ দিতে হবে তাদেরকে। আর ফিল্ডিং এর ক্ষেত্রেও বাংলাদেশকে আরো সতর্ক হতে হবে। এই বিশ্বকাপে এখন পর্যন্ত ফিল্ডিং এ বাংলাদেশ যে বাড়তি রান দিয়েছে আর সু্যোগ মিস করেছে সেটা না হলে বাংলাদেশের গল্পটা ভিন্ন হলেও হতে পারত।

সম্ভাব্য একাদশঃ

বাংলাদেশঃ তামিম ইকবাল, সৌম্য সরকার, সাকিব আল হাসান, মুশফিকুর রহিম, লিটন দাস, মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ, মোসাদ্দেক হোসেন, মোহাম্মদ সাইফুদ্দিন, মেহদী হাসান, মাশরাফি মুর্তোজা, মোস্তাফিজুর রহমান।

আফগানিস্তানঃ হজরতুল্লাহ জাজাই, গুলবদিন নাইব, রহমত শাহ, হাসমাতুল্লাহ শাহিদি, আসগর আফগান, মোহাম্মদ নবী, নাজিবুল্লাহ জাদরান, রাশিদ খান, ইকরাম আলি খিল, আফতাব আলম, মুজিব উর রহমান।

, , , , , , , , , , , ,